Home / আন্তর্জাতিক / দরকার হলে, সিরিয়ায় ইরানের সেনা-ঘাঁটি হবে: আসাদ

দরকার হলে, সিরিয়ায় ইরানের সেনা-ঘাঁটি হবে: আসাদ

বুধবার ইরানের আরবি স্যাটেলাইট নিউজ চ্যানেল আল-আলমকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ বলেছেন: তার দেশে বর্তমানে ইরানের কোনো সামরিক ঘাঁটি নেই। তবে দরকার হলে, ইরানকে সামরিক ঘাঁটি নির্মাণ করতে দিতে দামেস্ক দ্বিধা করবে না। সিরিয়ায় উপস্থিত মার্কিন, ফরাসি, তুর্কি ও ইসরাইলি সেনারা দখলদার। এসব সেনার বিরুদ্ধে যুদ্ধ চলবে। সিরিয়ায় তৎপর সন্ত্রাসী কিংবা বিদেশী সেনাদের নাগরিকত্বের দিকে না তাকিয়ে তাদেরকে দখলদার শক্তি ধরে নিয়ে প্রতিরোধ যুদ্ধ চালিয়ে যাবে সিরিয়ার সেনাবাহিনী।

সিরিয়ায় সন্ত্রাস বিরোধী যুদ্ধে লেবাননের হিজবুল্লাহর উপস্থিতি সংক্রান্ত এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন: দামেস্কের অনুরোধে সাড়া দিয়ে হিজবুল্লাহ সিরিয়ায় এসেছে এবং যতোদিন প্রয়োজন তারা সিরিয়ায় থাকবে। সিরিয়ার গেরিলা অধ্যুষিত দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের পরিস্থিতি কীভাবে মোকাবিলা করা হবে, তার রূপরেখা এখনো চূড়ান্ত হয়নি। আমরা রাজনৈতিক প্রক্রিয়াকে একটি সুযোগ দিতে চাই। কিন্তু তাতে যদি সাফল্য না আসে, তাহলে বলপ্রয়োগ করে ঐ এলাকা মুক্ত করা ছাড়া অন্য কোনো উপায় থাকবে না।

এর আগে ডেইলি মেইলকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট তার দেশের সংকট উসকে দেয়ার জন্য পাশ্চাত্যকে দায়ী করে বলেন: আমার সরকারকে উৎখাতের লক্ষ্যে পাশ্চাত্য এখনো ষড়যন্ত্র চালিয়ে যাচ্ছে। পার্সটুডে।

About superadmin

Check Also

মানবাধিকার পরিষদ থেকে আমেরিকার পদত্যাগকে স্বাগত জানালো রাশিয়া

জাতিসংঘ মানবাধিকার পরিষদ থেকে আমেরিকার বেরিয়ে যাওয়াকে স্বাগত জানিয়েছে রাশিয়া। মস্কো বলেছে, এ সংস্থা কিছুই ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *